Basic Info BD https://www.basicinfobd.com/2021/12/blog-post_13.html

কিভাবে একটি ফ্রি ব্লগস্পট সাইট তৈরি করবেন

 

বছরের যেকোনো একটি দিন আপনি যদি একটি ব্লগ তৈরি করেন তাহলে এটা আপনার নিজেকে নিজের গিফট দেয়া হবে। একটি ব্লগ শুধুমাত্র আপনাকে নিজেকেই প্রকাশ করতে সাহায্য করে না, এটা আপনার অভিজ্ঞতা এবং ফ্যান ফলোয়ার বানাতেও সাহায্য করে। এছাড়াও আপনি সৎ উপায়ে অর্থ উপার্জন ও করতে পারবেন। আপনি যদি ব্লগিং জগতে নতুন হন এবং ভাবছেন কিভাবে ফ্রি তে ব্লগ শুরু করবেন তাহলে এই আর্টিকেলটি আপনার জন্য। এই আর্টিকেলে blogger.com ব্যবহার করে আপনি ফ্রিতে কিভাবে ব্লগ তৈরি করতে হয় তা শিখবেন।  চলুন তাহলে শুরু করা যাক ।

Blogger.com  পরিচিতি

Blogger.com   গুগলের একটি ফ্রি সাইট অথবা প্ল্যাটফরম যেখানে আপনি .blogspot.com এর সাহায্যে ফ্রি ব্লগ তৈরি করতে পারবেন। 

Blogger.com  এ ব্লগ শুরু করার সুবিধা-

১। Blogger.com   এ ব্লগ শুরু করা ফ্রি এবং সহজ

২। এই প্ল্যাটফরমটির মালিক গুগল । এজন্য আপনি এটাকে পুরোপুরি ভরসা করতে পারেন। ‘

৩। যদিও আরো অনেক free blogging platforms রয়েছে যেমন WordPress.com, Weebly, Tumblr,Blogger.com যেগুলো আপনাকে কাজে স্বাধীনতা অথবা ফিচার অফার দিবে অনেক।

৪। আপনি Google ADSense  এবং  অন্য প্রোগ্রাম যেমন অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং দ্বারা খুব সহজে আপনার ব্লগ মনেটাইজ করতে পারেন। 

এখন দেখে নিন কিভাবে আপনি আপনি আপনার ব্লগটি শুরু করবেন।

Blogger.com   এ কিভাবে ব্লগ শুরু করবেন তা ধাপে ধাপে দেয়া হলো –

ধাপ ১-

একটি ব্লগার অ্যাকাউন্ট তৈরি করুন।

শুরু করার জন্য Blogger.com   এ যান । এরপর আপনি দেখতে পারবেন খুব সুন্দর একটি ছবি যযা আপনাকে ফি ব্লগ তৈরি করার জন্য প্রোমোট করছে। যখন থেকে Blogger.com   গুগলের প্রোড্যাক্ট তখন থেকে আপনি খুব সহজে আপনার জিমেইল অ্যাকাউন্টে লগ ইন করে ফ্রি ব্লগ তৈরি করতে পারেন।


লগ ইন করার পর আপনাকে জিজ্ঞেস করা হবে আপনি কি আপনার ব্লগ ডিফল্ট গুগল প্লাস দিয়ে ব্যবহার করতে চান নাকি আপনি লিমিটে Blogger.com   প্রোফাইল দিয়ে কন্টিনিউ করতে চান। এক্ষেত্রে আপনাকে পরামর্শ দেয়া হবে গুগল প্লাস প্রোফাইল ব্যবহার করার জন্য। এরপরের স্ক্রিনে ,”Create your blog” এর উপর ক্লিক করুন আপনার ব্লগ শুরু করার জন্য।

ধাপ ২-

ব্লগের জন্য একটি নাম এবং একটি থিম পছন্দ করুন

এরপরের স্ক্রিনে আপনাকে ব্লগের জন্য একটি ডোমেইন সিলেক্ট করতে হবে। এক্ষেত্রে যদি আপনি ডোমেইন নাম কি তা না জানেন তাহলে জেনে নিন। ডোমেইন নাম হলো একটি অ্যাড্রেস যার মাধ্যমে মানুষ আপনার ওয়েবসাইটে অ্যাক্সেস নিতে পারবেন। এটা অনেকটা আপনার ফিজিক্যাল অফিসের মত যেখানে পৌছানোর জন্য মানুষের ঠিকানা প্রয়োজন। একটি শর্ট ডোমেইন নাম খুঁজে নিন যা আপনার ব্লগ টপিকের সাথে মিলে। কিছু ডোমেইন নাম জানার জন্য এখানে ক্লিক করুন। এরপর একটি সুইটেবল থিম পছন্দ করুন আপনার ব্লগের জন্য এবং Create blog বাটনে ক্লিক করুন। 


ধাপ ৩-

আপনার ব্লগার ব্লগ অপ্টিমাইজ করুন

আপনার ব্লগটি তৈরি করার পর এবার সময় হলো সার্চ ইঞ্জিন ভিজিবিলিটি এবং ব্যবহারকারীর ভালো অভিজ্ঞতার জন্য এটাকে অপ্টিমাইজ করা।


এটা একটু সময়ের ব্যাপার। আপনি এটি Left hand-side panel  এ গেলে পাবেন । এরপর Settings বাটনে ক্লিক করুন । এরপর আপনি নিচের উপায়ে আপনার ব্লগ অপ্টিমাইজ করতে পারবেন। 

  • আপনার ব্লগের একটি ডিস্ক্রিপশন লিখুন
  • ব্লগার ব্লগের পোস্ট সেকশন অপ্টিমাইজ করুন
  • SEO এর জন্য আপনার ব্লগ অপ্টিমাইজ করুন

ধাপ ৪-

থিম এবং লেআউট এডিট করুন

এই সেকশনে আমরা ব্লগার টেমপ্লেটের লেআউটটি এডিট করব।

১। লোগো যুক্ত করা

লোগো আপনার ব্র্যান্ডকে প্রকাশ করে। Blogger.com আপনাকে কাস্টম লোগো সেট করতে দেয়। আপনি যেহেতু মাত্রই ওয়েবসাইটের যাত্রা শুরু করছেন আপনার ব্যয়বহুল লোগোর দরকার নেই। আপনি Canva দিয়ে সহজেই লোগো বানাতে পারেন। তারপর লেআউট অপশনের হেডার এ গিয়ে এডিট এ ক্লিক করে কাস্টম ইমেজ আপ্লোড করুন।

২। Navbar সরিয়ে ফেলুন

Navbar  বেশ বিরক্তিকর একটি জিনিস এবং তা আপনার ওয়েবসাইটের সৌন্দর্য নষ্ট করে।  এটি সরিয়ে ফেলার জন্য "Navbar " লেখা বক্সে এডিটে ক্লিক করুন। পপআপ উইন্ডো আসলে এটি অফ করে দিন।

৩। কাস্টম গ্যাজেট যুক্ত করুন

আপনি সোশ্যাল মিডিয়া বাটন, সার্চ অপশন, কন্টাক্ট ফর্ম, ভিজিটর সংখ্যা, কাস্টম মেন্যু ইত্যাদি গ্যাজেট যুক্ত করতে পারেন। 

ধাপ ৫ –

কন্টেন্ট পাবলিশ

এটার সময় আপনাকে কিছু জিনিস মনে রাখতে হবে –

১। আপনাকে একটি About us page তৈরি করতে হবে ব্লগের জন্য

২। আপনার প্রাইভেসি পলিসি এবং ডিসক্লেইমার পেজ লিখুন

৩। আপনার প্রথম পোস্ট লিখুন

ধাপ ৬-

Google AdSense এর সাহায্যে আপনার ব্লগ মনেটাইজ করুন

আপনার যখন একটি নির্দিষ্ট সংখ্যক ব্লগ পোস্ট এবং পাঠক হবে তখন আপনি নিশ্চিতভাবে Google AdSense ব্যবহার করতে পারবেন। এবং এর মাধ্যমে আপনি আপনার ব্লগস্পট থেকে অর্থ উপার্জন করতে পারবেন। আপনি খুব সহজে AdSense এর জন্য ড্যাশবোর্ডে অ্যাপ্লাই করতে পারেন এবং  অ্যাপ্রুভাল ও পেতে পারেন।  BlogSpot.com এর মাধ্যমে AdSense  এ অ্যাপ্লাই করতে চাইলে আপনার ড্যাশবোর্ডে যান এবং Earnings এর উপর ক্লিক করুন। 


আশা করি আপনাদের এই কন্টেন্টটি ভালো লেগেছে। এই গাইডলাইন অনুসরন করলে আপনারা খুব সহজে একটি ব্লগ তৈরি করতে পারবেন ফ্রিতে। আর যদি কারো কিছু জানার থাকে তাহলে কমেন্ট সেকশনে জানাবেন। 

এই কন্টেন্টের সব ছবি এই লিঙ্ক থেকে নেওয়া হয়েছে। 


অন্যদের সাথে শেয়ার করুন

0 Comments

দয়া করে নীতিমালা মেনে মন্তব্য করুন ??

নটিফিকেশন